আসাদের নেতৃত্বে পবা-মোহনপুরে বইছে ঐক্যের হাওয়া

সারোয়ার হোসেন: রাজশাহীর পবা-মোহনপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে দীর্ঘদিন পর বইতে শুরু করেছে ঐক্যর হাওয়া। আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে নেতাকর্মীরা নিজেদের মধ্যে ঐক্যর প্রয়োজনীয়তা অনুধাবণ করে ঐক্যবদ্ধ হতে শুরু করেছে। এতে নেতাকর্মী-সমর্থকদের মাঝে বইছে ঐক্যের সু-বাতাস। জানা গেছে, জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদের নেতৃত্বে ও তৎপরতায় পবা-মোহনপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের নতুন মুখের আদর্শিক নেতৃত্ব উপহার দেয়া হবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা কে। এদিকে পবা-মোহনপুর আসনে এবার নতুন নেতৃত্ব আসার কথা শুনে আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে রাতারাতি হয়েছে নাটকিয় পরিবর্তন ও ফিরেছে প্রাণচাঞ্চল্য। নেতাকর্মীরা ঐক্যের প্রয়োজনীয়তা অনুধাবন করে দীর্ঘদিনের মান-অভিমান ভুলে আসাদের নেতৃত্বে একে-অপরকে কাছে টানতে শুরু করেছে।
এতে করে দল ক্ষমতায় থাকার পরেও যারা কোন সুযোগ সুবিধা পায়নি, ঘরে ঢুকে ছিলেন তাদের মধ্যেও দীর্ঘদিনের বিরাজমান মান-অভিমান ও ক্ষোভ-অসন্তোষের বরফ গলতে শুরু করেছে। ব্যবসা-বাণিজ্যে, চাওয়া-পাওয়া-না পাওয়াসহ নানা কারণে যেসব নেতাকর্মীরা এতদিন নিস্ক্রীয় ছিল তারাও আসাদের আহবানে সাড়া দিয়ে নতুন নেতৃত্ব নিয়ে নবউদ্দ্যেমে রাজনীতিতে সক্রিয় হয়ে উঠেছে। ফলে,আসাদের ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টায় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের মধ্যে বইছে ঐক্যের হাওয়া। জানা গেছে, আসাদুজ্জামান আসাদের আহবানে সাড়া দিয়ে আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক কর্মকান্ড জোরদার, নিস্ক্রীয়দের সক্রীয় এবং সংগঠনকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের নিয়ে চলছে সভা সমাবেশ সহ পবা-মোহনপুর উপজেলার পাড়া-মহল্লায় নির্বাচনী পার্টি অফিস উদ্বোধন। এতে করে বেড়েছে নেতৃত্বের প্রতিযোগীতা, গতিশীল হয়েছে সাংগঠনিক কর্মকান্ড। আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আসাদুজ্জামান আসাদের মনোনয়ন নিশ্চিত শোনার পর থেকে আসাদের নেতৃত্বে পবা-মোহনপুর উপজেলায় ওয়ার্ড কমিটির কর্মীসভা জনসভায় রুপ নিচ্ছে,সৃস্টি হয়েছে গণজোয়ার। রীতিমতো পবা-মোহনপুর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় প্রায় প্রতিদিনই নানা কর্মসুচি আয়োজন করা হচ্ছে। সীমিত পরিসরে হলেও এসব কর্মসুচিতে  উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতা এবং কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার পাশাপাশি কর্মসুচিতে ভাল উপস্থিতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে।
জানা গেছে, জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনকে ঘষেমেঝে ঢেলে সাজানোর পাশাপাশি দলকে সাংগঠনিক ভাবে শক্তিশালী করার লক্ষ্য এসব কর্মসুচি ঘোষণা করা হয়েছে। মোহনপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রবীণ নেতা সুরঞ্জিত সরকার বলেন, বিশাল বড় বড় সভা সমাবেশ করে হাতে মাইক নিয়ে যে যাই বগি আওয়াজ দিক না কেন পবা-মোহনপুর তথা রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে আসাদুজ্জামান আসাদের কোন বিকল্প নাই। আজ আসাদুজ্জামান আসাদের জন্য পবা-মোহনপুর উপজেলা সহ জেলা আওয়ামী লীগের অঙ্গসংগঠন সর্বোচ্চ গতিশীল ও শক্তিশালী সংগঠন হিসেবে পরিনত হয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ