প্রেমিক পালালেন পুলিশ দেখে প্রেমিকা হলেন ধর্ষিত

সিলেট প্রতিনিধি : ফেঞ্চুগঞ্জে প্রেমিকের সাথে পালিয়ে যাচ্ছিলে ১৭ বছরের এক তরুণী। পথিমাধ্যে পুলিশ দেখে প্রেমিকাকে রেখেই পালালেন প্রেমিক রাবিনের। মেয়েটিকে একা পেয়ে ফুসলিয়ে মাইজগাঁও নিয়ে যায় সুমন। সেখানে সুমন ও ফাতু মিয়া কিশোরীকে ধর্ষন করে। খবর পেয়ে পুলিশ কিশোরীটিকে উদ্ধার করে এবং অভিযুক্ত দুজনকে গ্রেফতার করে।
গ্রেফতারকৃতরা হলো- উপজেলার মাইজগাঁওয়ের মিঠু মিয়ার কলোনির ভাড়াটিয়া সেলিম মিয়ার ছেলে সুমন (২৪) ও হাঁটুভাঙ্গা গ্রামের মৃত মজির আলীর ছেলে ফাতু মিয়া (৪৫)।
ফেঞ্চুগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ আবুল বাসার মোহাম্মদ বদরুজ্জামান জানান, কিশোরীর মা বাদি হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। মঙ্গলবার আসামীদের আদালতে পাঠানো হয়েছে।
মামলার এজহার থেকে জানা যায়, ফেঞ্চুগঞ্জের ছত্তিশ গ্রামের সাগর মিয়ার ছেলে রাবিনের সাথে এলাকার এক কিশোরীর প্রেমের সম্পর্ক ছিল। ওই সম্পর্কের জের ধরে সোমবার রাবিনের সাথে কিশোরীটি পালিয়ে যায়। পথে পুলিশ দেখে কিশোরীকে রেখে পালিয়ে যায় রাবিন। কিশোরীকে একা পেয়ে তাকে ফুসলিয়ে মাইজগাঁও নিয়ে যায় সুমন। সেখানে ফাতু মিয়াসহ সে কিশোরীকে ধর্ষন করে।

সর্বশেষ সংবাদ