তানোরে ভিপি পুকুর নিয়ে দ্বন্দ্বের অবসান

তানোর প্রতিনিধি: রাজশাহীর তানোর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী আব্দুল্লাহ আল-মামুনের উদ্যোগে পুকুর নিয়ে দীর্ঘদিনের দ্বন্দ্বের অবসান হয়েছে। এতে এলাকাবাসির মধ্যে পরম স্বত্ত্বি দেখা দিয়েছে। এদিকে জামায়াত মতাদর্শী একটি মহল ফের ওই পুকুর নিয়ে এলাকাবাসির মধ্যে নতুন করে দ্বন্দ্ব-বিবাধ সৃষ্টির জন্য নানা অপতৎপরতায় লিপ্ত রয়েছে বলে কিছু ব্যাক্তি জানান।
জানা গেছে, তানোরের কামারগা ইউপির চকসাজুড়িয়া মৌজায়, খতিয়ার নম্বর ১১৭, দাগ নম্বর ২৯, পরিমাণ ৬৭ শতক, ভিপি কেসনম্বর ৬০.৭৭ ও শ্রেণী পুকুর। স্থানীয় বাসিন্দা ও জামায়াত মতাদর্শী হাজী জনাব আলী কথিত ইজারা নিয়ে দীর্ঘ প্রায় ২০ বছর ধরে পুকুরটি দখলে রেখেছিলেন। কিšত্ত স্থানীয়রা পুকুরটি প্রভাবশালী জনাব আলীর কাছে থেকে উদ্ধার করে প্রকৃত ভূমিহীনদের মধ্যে ইজারা দেয়ার দাবি করে আসছিলেন। এদিকে জনাব আলীর ইজারা মেয়াদোত্তীর্ণ হলেও তিনি পুকুরের দখল না ছেড়ে ফের তার নামে ইজারার নেয়ার জন্য নানা অপতৎপরতা শুরু করেন। আর বিষয়টি জানাজানি হলে স্থানীয়দের মধ্যে চরম অসন্তোষ দেখা দেয় ও উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। এদিকে স্থানীয়দের অনুরোধে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল-মামুন পুকুরটি উদ্ধার ও প্রকাশ্যে নিলাম ডাকের মাধ্যমে প্রকৃত ভূমিহীরদের মধ্যে ইজারা দেওয়ার উদ্যোগ নেন। চলতি বছরের ১৩ জুলাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে প্রকাশ্যে নিলাম ডাকের মাধ্যমে ১৪ হাজার টাকায় ভূমিহীন ময়েজ উদ্দীন ইজারা নেন। আর দীর্ঘদিন পরে জামায়াত মতাদর্শী প্রভাবশালী জনাব আলীর কব্জা থেকে পুকুর উদ্ধার ও প্রকৃত ভূমিহীন ময়েজ উদ্দীনের নামে ইজারা দেয়ায় পুকুর নিয়ে দীর্ঘ দিনের দ্বন্দ্ব-মতবিরোধের অবসান হয়েছে। এব্যাপারে তানোর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল-মামুন বলেন, স্থানীয়দের অনুরোধে পুকুরটি উদ্ধার করে প্রকাশ্যে নিলাম ডাকে ভূমিহীনদের মধ্যে ইজারা দেয়ার জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে অনুরোধ করা হয়েছিল। এব্যাপারে তানোর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী কমিশনার ‘ভূমি’ অতিঃ মুহাঃ শওকাত আলী বলেন, প্রকাশ্যে নিলাম ডাকে অংশগ্রহণের মাধ্যমে ভুমিহীন ময়েজ উদ্দীন নামের ব্যক্তি পুকুর ইজারা নিয়েছেন। তিনি বলেন, যথাযথ নিয়ম অনুসারে পুকুরের নিলাম ডাক সম্পন্ন করা হয়েছে। এব্যাপারে হাজী জনাব আলী বলেন, অনিয়মের মাধ্যমে ময়েজ উদ্দীনকে পুকুর ইজারা দেয়া হয়েছে।