হিলি সীমান্তের জিরো পয়েন্টে দুই দেশের বাংলা ভাষা প্রেমীকদের শহিদদের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলী

হিলি প্রতিনিধি: একুশে ফেব্রুয়ারী মহান আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে হিলি সীমান্তের শুন্য রেখায় (ভারত – বাংলাদেশ) দুই বাংলার ভাষা প্রেমিকরা অস্থায়ী শহীদ বেদীতে শ্রদ্ধাঞ্জলী নিবেদন করেন।
আজ সোমবার দুপুর ১২ টায় হিলি সীমান্তের ইমিগ্রেশন চেকপোষ্ট গেটের শুন্য রেখায় ২৮৫/ ১১ নং পিলারে দিবসটি পালন করা হয়। এসময় ভারতের হিলি উজ্জীবন সোসাইটি ও উত্তরের রোববারসহ কয়েকটি সামাজিক সংগঠনের উদ্দোগে একটি ফুলের তোরা বাংলাদেশের শহীদ বেদীতে অর্পনের জন্য বাংলাদেশে দেয়া হয়। পক্ষান্তরে বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদের উদ্দোগে একটি ফুলের তোরা ভারতের হিলিতে নির্মীত শহীদ বেদীতে অর্পনের জন্য দেয়া হয়।
করোনার কারণে স্বল্প পরিসরে এই শ্রদ্ধাঞ্জলী বিনিময় করা হয়। এসময় ভারতের হিলি উজ্জীবন সোসাইটির সাধারণ সম্পাদক সুরুজ দাস, মেঘালয়-তুরা কমিটির আহ্বায়ক নবকুমার দাস, বঙ্গরত অমুল্য কুমার বিশ্বাস, বালুরঘাট পৌরসভার সাবেক চেয়ারম্যান হরিপদ সাহা উপস্থিত ছিলেন।
অপরদিকে বাংলাদেশের হিলি হাকিমপুর পৌরসভার মেয়র জামিল হোসেন চলন্ত, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শাহিনুর রেজা শাহিন, সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার লিয়াকত আলী, মুক্তিযোদ্ধা শামসুল আলম, জাহিদুল ইসলামসহ আরও অনেকে উপস্থিত ছিলেন।
শ্রদ্ধাঞ্জলী দেওয়ার পরে দুই দেশের নেতারা তাদের বক্ত্যবে বলেন, দেশ যাই হোক ভাষা এক। তাই ভাষার টানে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে হিলি সীমান্তে ছুটে আসা।