দুপচাঁচিয়ায় গলায় ফাঁস দিয়ে এক ছাত্রীর আত্মহত্যা

দুপচাঁচিয়া(বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার দুপচাঁচিয়ায় গত রোববার রাতে আইরিন নাহার লিমা(১৬) নামের এক মাদ্রাসা ছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। সে উপজেলার চামরুল ইউনিয়নের হরিণগাড়ী গ্রামের দুলাল মন্ডলের মেয়ে এবং মোস্তফাপুর খাদিজা খাতুন ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসার ১০ম শ্রেণির শিক্ষার্থী। এ ঘটনায় দুপচাঁচিয়া থানায় একটি অস্বাভাবিক মৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে।
থানা সূত্রে জানা যায়, ঘটনারদিন রাত ৯টা হতে সাড়ে ১০টার মধ্যে কোন এক সময়ে লিমা সকলের অগোচরে শয়ন কক্ষের তালার তীরের সঙ্গে ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে। পরে পরিবারের লোকজন জানতে পেরে থানা পুলিশকে খবর দেয়। গতকাল সোমবার পুলিশ লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করে ময়না তদন্তের জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে।
স্থানীয় ইউপি সদস্য আনোয়ারুল ইসলাম কিবরিয়া বলেন, লিমা মেধাবী ছাত্রী ছিল। সে মোস্তফাপুর খাদিজা খাতুন ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসায় ১০ম শ্রেনিতে পড়তো। লেখা পড়া নিয়ে বাবা-মা বকাবকি করায় সে অভিমান করে আত্মহত্যা করেছে।
দুপচাঁচিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ আবুল কালাম আজাদ বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে লিমা বাবা-মার ওপর অভিমান করে আত্মহত্যা করেছে। তবে ময়না তদন্তের রিপোর্ট পেলে মৃত্যুর প্রকৃত রহস্য উদঘাটিত হবে।