নবাবগঞ্জে গাছের গুড়ি ট্রলিতে তুলতে গিয়ে শ্রমিকের মৃত্যু

হিলি প্রতিনিধি-দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে কালবৈশাখী ঝড়ে পরে যাওয়া গাছ কেটে গাড়ীতে তোলার সময় মোটা একটি গুড়ি পিছলে পড়ে তাইজুল ইসলাম নামের এক ব্যাক্তি নিহত হন। নিহত তাইজুল ইসলাম উপজেলার কুশদহ ইউনিয়নের বাঘাডুবি ভবানীপুর গ্রামের ছব্বুর হোসেনের ছেলে।
আজ শনিবার (৭ মে) সকালে উপজেলার কুশদহ ইউনিয়নের ষষ্টিপাড়া গ্রামে এ দুর্ঘনা ঘটে।
 সম্প্রতি কালবৈশাখী ঝড়ে গাছপালাসহ প্রায় ২ শতাধিক কাঁচা পাকা ঘর ক্ষতিগ্রস্থ হয়।সেখানে শফিকুল ইসলামের বাড়ি সংলগ্ন আকাশমনি বাগানের বেশ কিছু গাছ ঝড়ে উপড়ে পড়ে যায়।ওই গাছগুলো বাগান মালিক বিক্রি করে দেয়।বিক্রয় হওয়া গাছগুলো সংগ্রহ করে ট্রলির মাধ্যমে গাড়িতে উঠানোর সময় মোটা একটি গুড়ি পিছলে পড়লে ঘটনাস্থলেই ওই শ্রমিকের মৃত্যু হয়।
স্থানীয় ইউপি সদস্য গোফ্ফার হোসেন বলেন,শনিবার সকালে ৩ জন শ্রমিক কালবৈশাখী ঝড়ে পরে যাওয়া  শফিকুলের বিক্রি করা গাছ গাড়িতে তোলার সময় বেগতিক ভাবে আকাশমনি গাছের গুড়ি মাথায় পড়ে গিয়ে গুরুত্বর রক্তাক্ত জখম হয়ে ঘটনাস্থলেই কাঠ শ্রমিক তাইজুল ইসলাম মৃত্যু বরন করেন।
নবাবগঞ্জ থানা কর্মকর্তা ফেরদৌস ওয়াহিদ বলেন ,আজ সকালে উপজেলার কুশদহ ইউনিয়নে গাছ কেটে গাড়িতে তোলার সময় একটি গুড়ি পিছলে পড়ে একজন ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করার জন্য দিনাজপুর এম এ আব্দুর রহিম মেডিক্যাল হাসাপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। সুরতহাল রিপোর্ট শেষে পরিবারের নিকট লাশ হস্তান্তর করা হবে। এঘটনায় থানায় একটি ইউডি মামলা হয়েছে।