শেখ হাসিনার ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তনে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা পথ সুগম হয়-মজনু

স্টাফ রিপোর্টার:বগুড়া জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনু বলেছেন, ১৯৮১ সালের ১৭ই মে বঙ্গবন্ধু শেখ হাসিনার দেশে ফিরে এসেছিলেন।প্রকৃতির বৈরী আবহাওয়া উপেক্ষা করে লাখো লাখো মানুষ বিমানবন্দরে সমবেত হয়েছিল জননেত্রী শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন জানানোর জন্য। গণতন্ত্রের মানস কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের পর প্রথম ভাষণে শেখ হাসিনা বলেছিলেন ”আপনাদের বোন হিসেবে, আপনাদের মেয়ে হিসেবে, বঙ্গবন্ধুর আদর্শে বিশ্বাসী আওয়ামী লীগের এক কর্মী হিসেবে আমি আপনাদের পাশে থাকতে চাই”।প্রথম বক্তব্যে আরও বলেছিলেন আজকের জনসভা লাখো চেনামুখ আমি দেখছি। শুধু নেই প্রিয় পিতা বঙ্গবন্ধু, মা ভাই বোন আরো প্রিয়জন’। সব হারিয়ে আজ আপনারাই আমার প্রিয়জন”। সভাপতির বক্তব্যে মজনু আরও বলেছেন, শেখ হাসিনাই দেশে ভূলুণ্ঠিত গণতন্ত্র ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনা পুনরুদ্ধার, ভোট ও ভাতের অধিকার প্রতিষ্ঠা করেছে। বাংলাদেশ আজ সফল রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির পথে বহমান। উন্নয়নের অভিযাত্রায় সকলকে শেখ হাসিনার সৎ নিষ্ঠাবান কর্মী হয়ে দেশবিরোধী অপশক্তির সকল ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করার জন্য আমাদের প্রস্তুত থাকতে হবে।তিনি গতকাল মঙ্গলবার সকাল এগারোটায় দলীয় কার্যালয়ে জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেছেন। বক্তব্য রাখেন বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু।আরো বক্তব্য রাখেন ডঃ মকবুল হোসেন, টি জামান নিকেতা, অ্যাডভোকেট মকবুল হোসেন মুকুল, প্রদীপ কুমার রায়, মঞ্জুরুল আলম মোহন, একেএম আসাদুর রহমান দুলু, শাহাদাত আলম ঝুনু, আব্দুল্লাহ আল রাজি জুয়েল , নাসরিন রহমান সীমা, আনিসুজ্জামান মিন্টু, মাশরাফি হিরো, আনোয়ার পারভেজ রুবন, রুহুল মোমিন তারিক, এসএম শাহজাহান, খালিকুজ্জামান রাজা, আবু সেলিম, এম এ বাসেদ, শহিদুল ইসলাম দুলু, আহসানুল হক, সাইফুল ইসলাম বুলবুল, আলমগীর হোসেন স্বপন, কামরুল হুদা, উজ্জ্বল গৌতম কুমার দাস, হেফাজত আর মিরা, আবু সুফিয়ান শফিক, রফি নেওয়াজ খান রবিন, মাহফুজুল ইসলাম রাজ, আব্দুস সালাম, কামরুল মোর্শেদ আপেল, আলমগীর বাদশা, শুভাশীষ পোদ্দার লিটন, সাজেদুর রহমান সাহীন, আমিনুল ইসলাম ডাবলু, মঞ্জুরুল হক মঞ্জু, জুলফিকার রহমান শান্ত, নাঈমুর রাজ্জাক তিতাস, রাশেদুজ্জামান রাজন প্রমুখ।আলোচনা সভা শেষে বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারবর্গ, মহান মুক্তিযুদ্ধের সকল শহীদ, জাতীয় চার নেতা, সহ সফল রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু এবং দেশের উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির কামনা করে দোয়া করা হয়।