কুড়িগ্রামে জালিয়াতির অভিযোগে প্রধান শিক্ষক কারাগারে

সাইফুর রহমান শামীম,কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে সভাপতির স্বাক্ষর জাল করে বিদ্যালয়ের যৌথ হিসাব থেকে সরকারী অনুদানের টাকা উত্তোলণের মামলায় জামিন নামঞ্জুর করে প্রধান শিক্ষককে কারাগারে পাঠিয়েছে আদালত। ওই প্রধান শিক্ষকের নাম মোছাঃ খাদিজা বেগম। তিনি উপজেলার পূর্ব রামরামসেন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক।
মামলার বাদী পক্ষের আইনজীবি এ্যাডঃ আশরাফুল আলম জানান, ওই বিদ্যালয়ের সভাপতি ও প্রধান শিক্ষকের যৌথ স্বাক্ষরে পরিচালিত সোনালী ব্যাংক লিমিটেড ফুলবাড়ী শাখা কুড়িগ্রাম এর ৫২০৫০-৩৪১৫১৬৪৫ নং হিসাব থেকে প্রধান শিক্ষক খাদিজা বেগম প্রতারণার উদ্দ্যেশে সভাপতি আবু মুসার স্বাক্ষর জাল করে ০৩/০৯/২০২০ এবং ২০/০৯/২০২০ তারিখ দুই কিস্তিতে ৮২ হাজার টাকা উত্তোলণ করেন। এ ব্যাপারে বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ করে প্রতিকার না পেয়ে অবশেষে আদালতে পেনাল কোডের -৪৬৭, ৪৬৮ ও ৪৭১ ধারায়  মামলা দায়ের করেন সভাপতি আবু মুসা। মামলা নম্বর সিআর-১৮/২০২২(ফুলবাড়ী)। সেই মামলায় উচ্চ আদালত থেকে নেয়া ৬ সপ্তাহের জামিনে ছিলেন প্রধান শিক্ষক খাদিজা বেগম। উচ্চ আদালতের জামিনের মেয়াদ শেষ হওয়ায় বুধবার (১৮ মে) চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত, কুড়িগ্রাম এ হাজির হয়ে জামিন প্রার্থনা করেন তিনি। কিন্তু বিজ্ঞ বিচারক আলমগীর কবীর শিপন তার জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।
এ প্রসঙ্গে  সহকারী উপজেলা শিক্ষা অফিসার রিয়াজুল ইসলাম প্রধান শিক্ষক কারাগারে যাওয়ার বিয়ষটি নিশ্চিত করে জানান, আদালতের কাগজ পাওয়া মাত্র ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।