বগুড়ায় বিএনপির প্রতিবাদ বিক্ষোভ সরকার সকল ক্ষেত্রে ব্যর্থ হয়েছে-আমান উল্লাহ আমান

বগুড়া অফিস-বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা , ঢাকা মহানগর বিএনপি উত্তরের সভাপতি ও সাবেক ডাকসু ভিপি আমান উল্লাহ আমান বলেছেন, বর্তমান সরকার সকল ক্ষেত্রে ব্যর্থ হয়েছে। তাদের কথার সাথে কাজের কোন মিল নেই। সব কথাই তারা মিথ্যা বলে। ব্যর্থতার কারনে সরকার পুলিশ বাহিনীকে মাঠের নামিয়ে ভোলায় গুলি করে বিএনপি কর্মী আব্দুর রহিমকে হত্যা করেছে। আমান বলেন, দেশে গ্যাস নেই, বিদ্যুত নেই, তেল নেই, সর্বত্র হাহাকার অবস্থা বিরাজ করছে। তাই জনগন তেল, গ্যাস, বিদ্যুতের কষ্টে আজ নাজেহাল। তাই এদেরকে আর সময় দেয়া যায় না। গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা করে নির্বাচিত সরকার ক্ষমতায় বসাতে
হবে। সেই সরকার সকল সমস্যা সমাধান করবে। সেই আন্দোলন বগুড়া থেকেই শুরু করতে হবে। এতে সরকারের পতন হবেই। সেই আন্দোলনে শরীক হওয়ার জন্য সকল দেশপ্রেমিক শক্তিকে একযোগে রাজপথে নামার আহবান জানান তিনি। রোববার বিকেলে শহরের নবাববাড়ী রোডে বগুড়া জেলা বিএনপি আয়োজিত প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। জ¦ালানী তেলের মূল্য বৃদ্ধি ও সংকট ও দেশব্যাপী লোডশেডিংএর প্রতিবাদে কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে জেলা বিএনপির আহবায়ক ও পৌর সভার মেয়র রেজাউল করিম বাদশার সভাপতিত্বে সমাবেশে আরো বক্তব্য দেন চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট একেএম মাহবুবর রহমান, জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক অ্যাডভোকেট একেএম সাইফুল ইসলাম ও ফজলুল বারী তালুকদার বেলাল , সাবেক এমপি কাজী রফিকুল ইসলাম, জয়নাল আবেদীন চাঁন, আলী আজগর তালুকদার হেনা, লাভলী রহমান, এম আ্র ইসলাম স্বাধীন, হামিদুল হক চৌধুরী হিরু, মাফতুন আহমেদ খান রুবেল, শহীদুল ইসলাম বাবলু, খাদেমুল ইসলাম, মাজেদুর রহমান জুয়েল, আবু হাসান , নূরে আলম সিদ্দিকী রিগ্যা প্রমুখ। সমাবেশে জেলার প্রতিটি এলাকা থেকে নেতাকর্মীরা মিছিল সহকারে অংশ নেন। উক্ত সমাবেশে কয়েক হাজার নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।নের উপদেষ্টা , ঢাকা মহানগর বিএনপি উত্তরের সভাপতি ও সাবেক ডাকসু ভিপি আমান উল্লাহ আমান বলেছেন, বর্তমান সরকার সকল ক্ষেত্রে ব্যর্থ হয়েছে। তাদের কথার সাথে কাজের
কোন মিল নেই। সব কথাই তারা মিথ্যা বলে। ব্যর্থতার কারনে সরকার পুলিশ বাহিনীকে মাঠের নামিয়ে ভোলায় গুলি করে বিএনপি কর্মী আব্দুর রহিমকে হত্যা করেছে। আমান বলেন, দেশে গ্যাস নেই, বিদ্যুত নেই, তেল নেই, সর্বত্র হাহাকার অবস্থা বিরাজ করছে। তাই জনগন তেল, গ্যাস, বিদ্যুতের কষ্টে আজ নাজেহাল। তাই এদেরকে আর সময় দেয়া যায় না। গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা করে নির্বাচিত সরকার ক্ষমতায় বসাতে হবে। সেই সরকার সকল সমস্যা সমাধান করবে। সেই আন্দোলন বগুড়া থেকেই শুরু করতে হবে। এতে সরকারের পতন হবেই। সেই আন্দোলনে শরীক হওয়ার জন্য সকল দেশপ্রেমিক শক্তিকে একযোগে রাজপথে নামার আহবান
জানান তিনি। রোববার বিকেলে শহরের নবাববাড়ী রোডে বগুড়া জেলা বিএনপি আয়োজিত প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। জ¦ালানী তেলের মূল্য বৃদ্ধি ও সংকট ও দেশব্যাপী লোডশেডিংএর প্রতিবাদে কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে জেলা বিএনপির আহবায়ক ও পৌর সভার মেয়র রেজাউল করিম বাদশার সভাপতিত্বে সমাবেশে আরো বক্তব্য দেন চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট একেএম মাহবুবর রহমান, জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক অ্যাডভোকেট একেএম সাইফুল ইসলাম ও ফজলুল বারী তালুকদার বেলাল , সাবেক এমপি কাজী রফিকুল ইসলাম, জয়নাল আবেদীন চাঁন, আলী আজগর তালুকদার হেনা, লাভলী রহমান, এম আ্র ইসলাম স্বাধীন, হামিদুল হক চৌধুরী হিরু, মাফতুন আহমেদ খান রুবেল, শহীদুল ইসলাম বাবলু,
খাদেমুল ইসলাম, মাজেদুর রহমান জুয়েল, আবু হাসান , নূরে আলম সিদ্দিকী রিগ্যা প্রমুখ। সমাবেশে জেলার প্রতিটি এলাকা থেকে
নেতাকর্মীরা মিছিল সহকারে অংশ নেন। উক্ত সমাবেশে কয়েক হাজার নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।