বগুড়ায় রাজশাহী রেঞ্জ আন্তঃজেলা ফুটবল প্রতিযোগিতা শুরু

সঞ্জু রায়, বগুড়া: প্রতিবছরের ন্যায় বগুড়ায় প্রাণবন্ত আয়োজনে বাংলাদেশ পুলিশ রাজশাহী রেঞ্জ আন্তঃজেলা ফুটবল প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে। বুধবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে বগুড়া পুলিশ লাইন্স মাঠে বেলুন, ফেস্টুন ও পায়রা উড়িয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এই প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন জেলা পুলিশ সুপার সুদীপ কুমার চক্রবর্ত্তী বিপিএম।
উদ্বোধনী ম্যাচেই ৭-০ গোলে সিরাজগঞ্জ জেলা পুলিশ দলকে পরাজিত করে প্রথম দিনেই প্রতিযোগিতায় বাজিমাত করেছে গত বছরের টুর্ণামেন্ট চ্যাম্পিয়ন বগুড়া জেলা পুলিশ দল। আবার একই দিন বিকেলে অপর আরেকটি ম্যাচে ১-০ গোলে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা পুলিশ দলকে পরাজিত করে প্রতিযোগিতার পরবর্তী ধাপের জন্য নিজেদের অবস্থান নিশ্চিত করেছেন পাবনা জেলা পুলিশ দল।
নকআউট পদ্ধতিতে রাজশাহী বিভাগের ৮টি দল নিয়ে অনুষ্ঠিত এই প্রতিযোগিতার উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বগুড়া জেলা পুলিশ সুপার সুদীপ কুমার চক্রবর্ত্তী বলেন, গত বছর করোনার স্থবিরতার পরে এই রাজশাহী রেঞ্জ ফুটবল খেলার মধ্যে দিয়েই বগুড়ার ক্রীড়াঙ্গনে জাগরণ তৈরি হয়েছিল। খেলাধুলার মূল চেতনাই হচ্ছে ভালো কিছু করার জন্য ঐক্যবদ্ধ হওয়া। তিনি বলেন, পুলিশ সদস্যদের দলবদ্ধভাবে সকল স্থানে সকল পরিবেশে কাজ করতে হবে। তাই তাদের দায়িত্ব পালনে আরও অনুপ্রাণিত ও উজ্জীবিত করতেই এই আয়োজন। এই বছর প্রতিযোগিতায় ৮ টি দল যথাক্রমে গত বছরের চ্যাম্পিয়ন বগুড়াসহ সিরাজগঞ্জ, রাজশাহী, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, পাবনা, জয়পুরহাট, নওগাঁ ও আর.আর.এফ রাজশাহী পুলিশের ফুটবল দল অংশগ্রহণ করবে। শুরু থেকেই অত্যন্ত উৎসবমুখর ও প্রাণবন্তভাবে শুরু হওয়া এই প্রতিযোগিতা ইতিবাচক উন্মাদনার মাধ্যমেই সমাপ্তির প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন তিনি।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বগুড়া জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক্রাইম অ্যান্ড অপস্) আব্দুর রশিদ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মোতাহার হোসেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল ও মিডিয়া মুখপাত্র) শরাফত ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ট্রাফিক) হেলেনা আক্তার, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (গাবতলী সার্কেল) নিয়াজ মেহেদী, সদর থানার অফিসার ইনচার্জ নূরে আলম সিদ্দিকী ও জেলা ক্রীড়া অফিসার মাসুদ রানা উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও ফুটবল প্রতিযোগিতার পরিচালনায় ছিলেন বগুড়া জেলা ক্রীড়া সংস্থার রেফারি মমিন জুয়েল, শফিকুল ইসলাম বাবু, খান আব্দুল্লাহ এবং এমএ লিটন।