রাবিতে মুক্তিযোদ্ধা কোটার দ্বিতীয় দিনের সাক্ষাৎকার  

রাবি প্রতিনিধি : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে  দ্বিতীয় দিনের মুক্তিযোদ্ধা কোটায় ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের সাক্ষাৎকার নেয়া হয়েছে।

বুধবার(১৯ অক্টোবর) বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ সুখরঞ্জন ছাত্র শিক্ষক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে (টিএসসি) তিন দিনব্যাপী সাক্ষাৎকারের দ্বিতীয়পর্বে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষের মুক্তিযোদ্ধা কোটায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের দ্বিতীয়পর্বে সাক্ষাৎকারে অংশ নিচ্ছে ৫৯৭ থেকে ১১৯২ রোল নম্বরে থাকা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও নাতি-নাতনিরা। যা সকাল সাড়ে ৯টায় শুরু হয় যা শেষ হবে বিকাল ৪টায়। এবং তৃতীয় দিন ১১৯৩-১৭৮৮ রোল নম্বরের সাক্ষাৎকার নেওয়া হবে।

গোপালগঞ্জ থেকে আসা বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহাবুদ্দীন এসেছেন তার নাতিকে নিয়ে তিনি বলেন, সাক্ষাৎকারের কার্যক্রম খুব সুন্দরভাবে হচ্ছে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের এমন উদ্দোগ প্রংশনীয়। আমার নাতিকে এখানেই পড়াশোনা করাতে পারলে অনেক ভালো লাগবে।

প্রসঙ্গত এবারের সাক্ষাৎকারে যে ডকুমেন্ট লাগবে, ১.বীর মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কন্যার ক্ষেত্রে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার মূল সনদপত্র অথবা নম্বরপত্রসহ মূল রেজিস্ট্রেশন কার্ড ও রেজিস্ট্রেশন কার্ডের রোল নম্বর সম্বলিত ফটোকপি। বীর মুক্তিযোদ্ধা পরিচিতির জন্য গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ওয়েব সাইট থেকে mis.molwa.gov.bd বীর মুক্তিযোদ্ধা তালিকার বিস্তারিত পৃষ্ঠাটি মন্ত্রণালয়ের লোগো ও ওয়েব লিংক সহ ডাউনলোড করে আনতে হবে অথবা বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ডিজিটাল সনদপত্র বা ডিজিটাল সার্টিফিকেট দেখাতে হচ্ছে।

২.নাতি-নাতনিদের ক্ষেত্রে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার মূল সনদপত্র অথবা নম্বরপত্রসহ মূল রেজিস্ট্রেশন কার্ড ও রেজিস্ট্রেশন কার্ডের রোল নম্বর সংবলিত ফটোকপি, বীর মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনি পরিচিতির জন্য অবশ্যই সংশ্লিষ্ট এলাকার মুক্তিযোদ্ধা সংসদের দায়িত্ব প্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা/জেলা প্রশাসকের সাম্প্রতিক প্রত্যয়নপত্র সঙ্গে আনতে হবে এবং নাতি/নাতনি প্রমাণের জন্য দাদা/দাদি, নানা/নানি ও বাবা/মায়ের জাতীয় পরিচয়পত্র শো করতে হচ্ছে।