গাবতলীতে সাংবাদিক মোজাফ্ফরের বিরুদ্ধে থানায় এক নারীর অভিযোগ

গাবতলী (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার গাবতলীতে মামলার চার্জসিট থেকে নাম বাদ দেয়ার কথা বলে ইটভাটা শ্রমিক অসহায় এক বিধবার কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে বাংলাদেশ প্রেসক্লাব, গাবতলী উপজেলার শাখার সভাপতি কথিত সাংবাদিক মোজাফ্ফর রহমানের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে, গত ২৯অক্টোবর শনিবার রাতে গাবতলী মডেল থানা চত্বরে।
জানা গেছে, গাবতলীর বালিয়াদিঘী ইউনিয়নের মালিয়ানডাঙ্গা গ্রামের মৃত আনছার আকন্দের মেয়ে রুমি খাতুনের সাথে একই ইউনিয়নের বালিয়াদিঘী গ্রামের আ: ছাত্তারের ছেলে রুমান প্রামানিকের সাথে গত ৫বছর আগে পারিবারিক প্রস্তাবে বিয়ে হয়। সংসারে অভাব অনটন থাকায় মেয়ের সুখের কথা ভেবে রুমির অসহায় বিধবা মা ইটভাটা শ্রমিক লাকী বেওয়া গত ১মাস আগে স্থানীয় একটি এনজিও থেকে ৩২হাজার টাকা লোন করে জামাইকে একটি ভ্যানগাড়ী কিনে দেন। ওই ভ্যানগাড়ী চালিয়ে জামাই-মেয়ের সংসার চলতো। গত ২৯অক্টোবর বিকেলে ভ্যানচালক রুমান বালিয়াদিঘী চারমাথা থেকে পেরিরহাটে যাবার পথে ১টি ছাগলসহ বগুড়া নারুলী এলাকার শাহরিয়ার সাদিক অর্ক (১৯) নামের একজন যাত্রী ওই ভ্যানে উঠে। পেরিরহাটে পৌঁছামাত্র স্থানীয়রা ছাগল চোর সন্দেহে দুইজনকে আটক করে ট্রিপল লাইনে ফোন করলে থানার এসআই সোলাইমান আলী সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ভ্যানসহ ওই দুইজনকে আটক করে থানায় আনে। খবর পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে থানায় ছুটে আসেন বাংলাদেশ প্রেসক্লাব গাবতলী উপজেলার শাখার সভাপতি সাংবাদিক মোজাফ্ফর রহমান। এরপর তিনি আটককৃত ভ্যানচালক রুমানের নাম মামলার চার্জসিট থেকে বাদ দেয়ার কথা বলে রুমানের শাশুড়ি লাকী বেওয়ার কাছে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে ৫হাজার টাকা দাবী করেন। পরে রুমানের শাশুড়ি সুদের উপর ৩হাজার টাকা সংগ্রহ করে কথিত সাংবাদিক মোজাফ্ফর রহমানের হাতে তুলে দেন। এরপর আবারো আটককৃত ভ্যানগাড়ী থানা থেকে ছাড়িয়ে নেয়ার কথা বলে আরো ১০হাজার টাকা দাবী করেন মোজাফফর। বাধ্য হয়ে অসহায় ওই বিধবা গাবতলী প্রেসক্লাবে এসে হাউমাউ করে কেঁদে সাংবাদিকদের ঘটনাটি জানিয়ে দেন। এ প্রসঙ্গে কথিত সাংবাদিক মোজাফ্ফর রহমান বলেন, আমি কারো কাছ থেকে কোন টাকা-পয়সা নেইনি। এ ব্যাপারে মডেল থানার ওসি সনাতন চন্দ্র সরকার বলেন, এ সংক্রান্ত ভুক্তভোগী লাকী বেগম বাদী হয়ে কথিত সাংবাদিক মোজাফ্ফর রহমানকে অভিযুক্ত করে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দাখিল করেছেন-যার অভিযোগ নং-২১৬/২২। বিষয়টি তদন্ত করে মোজাফফরের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে ওসি সনাতন চন্দ্র সরকার জানান।

সর্বশেষ সংবাদ