রাজনীতির মাঠে মিথ্যাচারই রাব্বনী মামুনের শেষ ঠিকানা!

সারোয়ার হোসেন, তানোর (রাজশাহী) প্রতিনিধিঃ পদপদবী হারিয়ে রাজনীতির মাঠে মিথ্যাচারই হচ্ছে রাব্বানী মামুনের শেষ ঠিকানা। তাই এমপির বিরুদ্ধে আর কোন পথ খুঁজে না পেয়ে বাপ দাদার আমল তুলে চলছে এমপি বিরোধী মিথ্যা অপপ্রচার।
 এতে করে একজন শতবর্ষের আরেক জন ছাত্র রাজনীতির নেতা দাবি করা নেতাদের এমন চাঞ্চল্যকর অপপ্রচারের কর্মকান্ডে সাধারণ মানুষের মধ্যে দেখা দিয়েছে চাঞ্চল্য ও বইছে রাব্বানী মামুনকে নিয়ে অরুচিকর আলোচনা সমালোচনার ঝড়।
জানা গেছে, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর মনোনীত বর্তমান ৩বারের সফল এমপি ও সাবেক শিল্প প্রতিমন্ত্রী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ওমর ফারুক চৌধুরীর বিরুদ্ধে মিথ্যা ষড়যন্ত্র ও আওয়ামী লীগ বিরোধী বিভিন্ন কর্মকান্ডের কারণে তানোর উপজেলা আওয়ামী লীগের পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়।
যার ফলে, রাব্বানী মামুন উপজেলা আওয়ামী লীগের পদপদবী হারিয়ে রাজনীতির মাঠে দিশেহারা হয়ে বাপ দাদার আমলের কথা তুলে এমপি ওমর ফারুক চৌধুরীর বিরুদ্ধে কখনো গোদাগাড়ী কখনো তানোরের মাঠে ঘাটে করে যাচ্ছেন মিথ্যাচার।
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মনোনীত ৩বারের সফল এমপি ও সাবেক শিল্প প্রতিমন্ত্রী, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ওমর ফারুক চৌধুরীর বিরুদ্ধে রাব্বানী মামুনের মিথ্যাচারে নেতাকর্মী সমর্থকদের মধ্যে দেখা দিয়েছে রাব্বানী মামুনের শাস্তির দাবিতে ব্যাপক উত্তেজনা ও যেন কোন সময় দিতে পারে গণধাওয়া।
 উপজেলা আওয়ামী লীগের একাধিক নেতা বলেন, আগেও পরপর দুইবার নিজ দলের প্রার্থীর বিরুদ্ধে ভোট করা সহ বিএনপির সাথে আঁতাত করে আওয়ামী লীগ বিরোধী ষড়যন্ত্র করায় নেয়া হয়েছিলো   রাব্বানী মামুনের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা। তার পরেও তাদের দলের পদ দেয়া হয়েছিল।
কিন্তু এবার প্রকার্শে সংসদ নির্বাচন ও উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ বিরোধী ষড়যন্ত্র করায় আওয়ামী লীগ থেকে তাদের বহিষ্কার করা হয়েছে। এতে করে তারা পদপদবী হারিয়ে রাজনীতির মাঠে পাগল হয়ে এমপি বিরোধী তথা আওয়ামী লীগ বিরোধী ষড়যন্ত্রে প্রকার্শে নেমেছেন। যা তৃণমূল আওয়ামী লীগ কখনোই মেনে নিবে না। তাদের মিথ্যা অপপ্রচারের জবাব ডাইরেক্ট মাঠেই দেয়া হবে।

সর্বশেষ সংবাদ