অবশেষে কাউন্সিলরের হস্তক্ষেপে বন্ধ হল বগুড়া পৌরসভার ৮ নং ওয়ার্ডের ডাম্পিং পয়েন্ট

বগুড়া পৌরসভার ৮ নং ওয়ার্ডের সেউজগাড়ি পানির ট্যাঙ্কি রোডের (বর্জ্য স্থানান্তর কেন্দ্র) ডাম্পিং পয়েন্ট অবশেষে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। এলাকাবাসী ও শিক্ষক শিক্ষার্থীদের দীর্ঘদিনের দাবির প্রেক্ষিতে শনিবার সকালে ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ইব্রাহিম হোসেন এলাকার সচেতন লোকদের কে সাথে নিয়ে ডাম্পিং পয়েন্টে তালা ঝুলিয়ে দিয়ে বন্ধ ঘোষণা করেন। জানা যায়, ২০১৯ সালের শেষের দিকে বগুড়া পৌরসভার মেয়র অ্যাডভোকেট একেএম মাহবুবুর রহমান একক সিদ্ধান্তে কোন কিছুর তোয়াক্কা না করেই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বেষ্ঠিত আবাসিক এলাকায় ঐ বর্জ্য স্থানান্তর কেন্দ্র স্থাপন করেন। কিন্তু ওই এলাকায় পাঁচটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, যার মধ্যে দুটি মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল, দুটি প্রাইমারি স্কুল, একটি কিন্ডার গার্টেন স্কুল ও চারটি ঔষধ কোম্পানি সহ আশেপাশে পাঁচটি আবাসিক ভবন ও বিভিন্ন অফিস-আদালত রয়েছে। ওই বর্জ্য কেন্দ্রের দুর্গন্ধের কারণে আশেপাশের লোকজনের বসবাস করা কঠিন হয়ে পড়েছিল, বিশেষ করে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কোমলমতি শিক্ষার্থীদের খুবই অসুবিধায় পড়তে হয়েছে। যার কারণে ওই বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কেন্দ্র অন্যত্র স্থানান্তর দাবিতে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী ও এলাকাবাসীরা ইতিপুর্বে মানববন্ধন, সমাবেশ সহ বিভিন্ন কর্মসূচি দিয়ে আসছিলেন। এই সকল দাবির পরিপ্রেক্ষিতে অত্র ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ইব্রাহিম হোসেন বর্জ কেন্দ্রটি তালা ঝুলিয়ে দিয়ে বন্ধ ঘোষণা করেন। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর হোসনে আরা হাসি, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মেহের আলী, সেউজগাড়ি ব্যবসায়ী মালিক সমিতির সভাপতি আব্দুল জলিল প্রমুখ সহ উক্ত এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। কাউন্সিলরের এ পদক্ষেপে এলাকাবাসীরা সন্তোষ প্রকাশ করে বলেন এখন তারা পরিবার পরিজন নিয়ে নিমর্ল বিশুদ্ধ বাতাসে বসবাস করতে পারবেন। তারা জন্য কাউন্সিলর কে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।