ইসরায়েলের সামরিক ঘাঁটি থেকে অস্ত্র-গোলাবারুদ চুরি

ইসরায়েলের সামরিক ঘাঁটি থেকে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র এবং গোলাবারুদ চুরি হয়েছে। এমন খবর উঠে এসেছে ইসরায়েলি দৈনিক ইয়েদিয়ত আহারোনতের এক প্রতিবেদনে।

পত্রিকাটি জানিয়েছে, ইসরায়েলের ‘আন নাকাব’ এলাকায় প্রশিক্ষণের কাজের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ সামরিক ঘাঁটি রয়েছে। আর সেখানকার অস্ত্র ভান্ডার থেকেই চুরি হয়েছে অস্ত্র ও গোলাবারুদ। অজ্ঞাত ব্যক্তিরা এর সঙ্গে জড়িত। তবে তাদেরকে এখনও পর্যন্ত চিহ্নিত করা সম্ভব হয়নি।

পত্রিকাটি আরো জানিয়েছে, তারা বিভিন্ন সূত্র থেকে জানতে পেরেছে ৫ দশমিক ৫৬ মিলিমিটার ব্যাসার্ধের ৯৩ হাজারের বেশি গুলি চুরি হয়েছে। এই চুরির ঘটনাকে বড় ধরণের দুর্ঘটনা হিসেবে বর্ণনা করা হয়েছে।

এর পাশাপাশি ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর একটি সূত্র জানিয়েছে, দক্ষিণাঞ্চলের একটি সামরিক ঘাঁটির গোলাবারুদের গুদাম থেকেও ব্যাপক পরিমাণ বিস্ফোরক চুরি হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ইসরায়েলে গত কয়েক বছরে অস্ত্র ও গোলাবারুদ চুরি যাওয়ার বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটেছে। গত বছর আল-জালিল সামরিক ঘাঁটি থেকে এম-সিক্সটিন মডেলের ৪৬টি রাইফেল চুরি হয়েছিল। এছাড়া কারমিয়িল ঘাঁটি থেকে ১৫ ধরণের বিভিন্ন অস্ত্র খোয়া যায়। প্রতি বছরই ইসরায়েলের সামরিক ঘাঁটিগুলি থেকে অস্ত্র চুরি যাওয়ার একাধিক ঘটনা ঘটে থাকে।

পৃথিবীর নানা প্রান্তে এরকম সামরিক ঘাঁটি থেকে অস্ত্র চুরি হতে দেখা যায়। নানা রকম চক্র কাজ করে এর পেছনে। কখনও কখনও এইসব অস্ত্র চুরির পেছনে সরকারি লোকেদেরও হাত থাকে। তাদের কেউ কেউ ধরা পড়েন আবার কখনও কখনও বিষয়টি ধামাচাপা পড়ে যায়।

সর্বশেষ সংবাদ