চুক্তি ভঙ্গ করে ২০ শতাংশ ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ শুরু করল ইরান

২০১৫ সালের পারমাণবিক চুক্তির সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য লঙ্ঘন ঘটিয়ে ইউরেনিয়ামকে ২০ শতাংশ সমৃদ্ধ করে তুলতে শুরু করেছে ইরান। সোমবার ভূগর্ভস্থ ফোর্ডো প্লান্টে প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে বলে বৈশ্বিক পারমাণবিক পর্যবেক্ষণ সংস্থা নিশ্চিত করেছে।

সমৃদ্ধ ইউরেনিয়াম চুল্লিতে জ্বালানী হিসাবে ব্যবহৃত হয়। কিন্তু একই সাথে পারমাণবিক বোমা ব্যবহার করতেও ব্যবহৃত হতে পারে। অস্ত্র-গ্রেড ইউরেনিয়ামে ৯০ শতাংশ পর্যন্ত বিশুদ্ধতা থাকে। তবে ইরান বলেছে তাদের পরমাণু কর্মসূচি শান্তিপূর্ণ।

২০১৫ সালে ছয় বিশ্বশক্তির সঙ্গে করা চুক্তি অনুযায়ী ইরানকে তাদের পরমাণু সমৃদ্ধকরণ ৪ শতাংশের নিচে রাখতে হবে। চুক্তির শুরুতে সব ঠিকঠাকই চলছিল। কিন্তু প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ক্ষমতায় আসার পর ২০১৮ সালের মে মাসে যুক্তরাষ্ট্রকে ওই চুক্তি থেকে সরিয়ে নেন এবং মধ্যপ্রাচ্যের দেশটির উপর পুনরায় কঠোর অর্থনৈতিক ও বাণিজ্য নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেন। তার পরপরই ইরান চুক্তি বাতিলের হুমকি দিয়েছিল।

কিন্তু চুক্তির অংশীদার বাকি দেশগুলোর হস্তক্ষেপে তেহরান শান্ত হয়। যদিও তারপর থেকে ইরানের বিরুদ্ধে নানা সময়ে চুক্তির শর্ত লঙ্ঘনের অভিযোগ উঠেছে। ইরানও নানা ঘটনার জেরে চুক্তি প্রত্যাহারের হুমকি দিয়ে যাচ্ছিল।