রাজশাহীতে ডিবি কার্যালয়ে ছিনতাইকারি আসামির হারপিক পান

আহসান হাবিব: রাজশাহী (মহানগর গেয়েন্দা শাখা) ডিবি পুলিশের কার্যালয়ে মো. রবিন (২৩) নামের একজন ছিনতাইকারী হারপিক পান করেছেন।

মঙ্গলবার দুপুরে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আসামী মো. রবিন নগরীর বোয়ালিয়া থানার সাধুর মোড় এলাকায় মৃত মোস্তফার ছেলে।

আরএমপির ডিবির উপ-কমিশনার (ডিসি) আবু আহাম্মদ আল মামুন জানান, গত শনিবার নগরীর মহিষবাথান এলাকায় ছুরি ধরে রওশন আরা বেগম নামে এক নারী ও তাঁর ছেলের কাছ থেকে একটি স্মার্টফোন এবং নগদ সাড়ে পাঁচ হাজার টাকা ছিনিয়ে নিয়ে যায় তিন-চারজন ছিনতাইকারী। এ ঘটনায় রওশন আরা ডিবি পুলিশে অভিযোগ দেন।

এ ঘটনায় ডিবি পুলিশ ছিনিয়ে নেয়া ফোনটির অবস্থান শনাক্ত করে মঙ্গলবার সকালে ফোনসহ রবিনকে আটক করে। এরপর তাঁর বিরুদ্ধে নগরীর রাজপাড়া থানায় মামলা করেন ভুক্তভোগী নারী। পরে আসামিকে আদালতে নেয়ার জন্য ডিবি কার্যালয়ে নেয়া হয়। তখন তিনি শৌচাগারে যেতে চান। একজন পুলিশ সদস্য তাঁকে শৌচাগারে নিয়ে যান। তিন মিনিট পর রবিন শৌচাগার থেকে বেরিয়ে আসেন। এরপর হাজতে অসুস্থ হয়ে পড়েন। তখন তিনি পুলিশকে জানান যে, শৌচাগারে তিনি হারপিক পান করেছেন। সাথে সাথে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

ডিসি আবু আহাম্মদ আল মামুন আরও জানান, বর্তমানে তাঁর শারীরিক অবস্থা ভাল বলে চিকিৎসক তাঁদের জানিয়েছেন। সুস্থ হওয়ার পর তাঁকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হবে। আসামি রবিনের বিরুদ্ধে নগরীর বোয়ালিয়া থানায় আরও ছয়টি মামলা আছে বলেও জানান তিনি।

সর্বশেষ সংবাদ