বগুড়ার ‘সাইক জেনারেল হসপিটালে’তরুণকে মারধর, আটক ৪

বগুড়ায় সদর উপজেলার ঠনঠনিয়া এলাকায় বেসরকারি সাইক জেলারেল হসপিটালে সৌরভ নামের এক তরুণকে মারধর করা হয়েছে বলে হাসপাতাল কতৃপক্ষের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে। পুলিশ এ ঘটনায় চারজনকে আটক করেছে।
মঙ্গলবার বিকেলে ওই তরুণকে মারধরের ঘটনা ঘটে।
ভুক্তভোগী সৌরভের অভিযোগ, তিনি একজন ব্লাড ডোনার। সম্প্রতি তিনি সাইক জেনারেল হসপিটাল রক্ত পরিক্ষা করেন। এখানকার রিপোর্টে তিনি ‘হেপাটাইটিস বি’ পজিটিভ। এ কারণে ওই সময় তিনি রক্ত দিতে পারেননি। পরে তিনি আবারো ব্লাড টেস্ট করেন। তবে এবার অন্য দুটি ক্লিনিকে। ওই দুই ক্লিনিকে তার হেপাটাইটিস বি নেভেটিভ রিপোর্ট আসে। মঙ্গলবার বিকেলে তিনি সাইক জেনারেল হসপিটালে গিয়ে তার টেস্টের ফলাফল চান। কিন্তু হাসপাতাল কতৃপক্ষ তাকে ফলাফলের কপি দিতে অস্বীকৃতি জানায়। এক পর্যায়ে হাসপাতালের এক চিকিৎসক স্টাফদের হুকুম দেন তাকে মারধর করে বের করে দিতে। এ সময় ২০ থেকে ২৫জন মিলে তাকে মারধর করতে থাকেন। এক পর্যায়ে হাসপাতাল কতৃপক্ষ তাকে চোর বলে আখ্যা দিয়ে ধাওয়া করে। ভয়ে তিনি বগুড়া ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স অফিসে গিয়ে আশ্রয় নেন।
স্থানীয়রা বলেন, এ ঘটনার পরপরই পুলিশ ঘটনাস্থলে অভিযান চালিয়ে চারজনকে আটক করে থানায় নিয়ে গেছে।
জানতে চাইলে সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদ মুঠোফোনে বলেন, ‘জিজ্ঞাসাবাদের জন্যে চারজনকে ইফতারের আগে (বিকেলে) থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। এখনো তাদের সঙ্গে কথা বলা হয়নি।’
এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত অভিযুক্ত হাসপাতাল কতৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

সর্বশেষ সংবাদ