ইসরায়েল-ফিলিস্তিনের মধ্যে যুদ্ধবিরতির আহ্বান বাইডেনের

ফিলিস্তিনে টানা আটদিন ইসরায়েলি হামলার পর অবশেষে সেখানে ‘যুদ্ধবিরতির’ আহ্বান জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ইসরায়েল সরকার এবং হামাসের প্রতি এ আহ্বান জানান তিনি।

মঙ্গলবার (১৮ মে) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি।

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুকে বাইডেন বলেছেন, গাজায় সংঘাত বন্ধ করতে তার দেশ মিসরসহ তিনটি দেশের সঙ্গে কাজ করছে।

এদিকে, অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলের অব্যাহত হামলা দ্বিতীয় সপ্তাহে গড়িয়েছে। পাল্টা জবাব দিচ্ছে হামাসও। চলমান এ সংঘাত শিগগিরই বন্ধ হওয়ার কোনো সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে না। গাজায় ইসরায়েলি হামলায় অন্তত ২১২ জনের মৃত্যু হয়েছে, যাদের মধ্যে ৬১টি শিশুও রয়েছে। আর দুই শিশুসহ ইসরায়েলে প্রাণ হারিয়েছেন অন্তত ১০ জন।

ইসরায়েলের দাবি, তাদের হামলায় প্রাণ হারানো বেশিরভাগ ফিলিস্তিনিই ‘জঙ্গি’ এবং নির্দোষ বেসামরিক নাগরিকের মৃত্যু অনাকাঙ্ক্ষিত। তবে ইসরায়েলের এমন দাবি নাকচ করে দিয়েছে হামাস।

হোয়াইট হাউসের এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘নির্দোষ নাগরিকদের নিরাপত্তা নিশ্চিতে সব ধরনের ব্যবস্থা নিতে ইসরায়েলকে তাগিদ দিয়েছেন বাইডেন। বাইডেন এবং নেতানিয়াহু গাজায় হামাস এবং অন্যান্য সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর বিরুদ্ধে চলমান অভিযানের অগ্রগতি নিয়েও আলোচনা করেছেন।’

সেখানে আরও বলা হয়, ‘প্রেসিডেন্ট বাইডেন যুদ্ধবিরতির পক্ষে তার অবস্থানের কথা জানিয়েছেন এবং সেদিক থেকে মিসর ও অন্যান্য মিত্রদের সঙ্গে তার দেশের আলোচনার বিষয়টিও তুলে ধরেছেন।’

গাজায় চলমান এই ধ্বংসযজ্ঞ পৃথিবীব্যাপী ব্যাপক সাড়া ফেলেছে। বিশ্বনেতা এবং মানবাধিকার সংগঠনগুলো নাগরিকদের মৃত্যু এবং ধ্বংসযজ্ঞ বন্ধে কার্যকর পদক্ষেপ নিতে আহ্বান জানিয়েছে।