তানোরে বালাইনাশক দোকানে বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে পটাশ সার

সারোয়ার হোসেন,তানোর: রাজশাহীর তানোর উপজেলার কামারগাঁ ইউপির চৌবাড়িয়া বাজারের জয়নব ট্রেডার্স নামের বালাইনাশক ব্যবসায়ী জয়নব আলী বেশি দামে পটাশ সার বিক্রি করছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। প্রায় দিন জয়নবের দোকান থেকে ভটভটিতে করে পটাশ সার আসে পৌর এলাকার তালন্দতে। জয়নব দাপটের সাথে বিসিআইসির পটাশ সার বিক্রি করছেন।প্রতি বস্তায় দেড় শত টাকা থেকে দুইশত টাকা করে বেশি নিচ্ছেন।তারপরও মিলছে না পটাশ সার। ফলে চরম বিপাকে পড়তে হয়েছে চাষিদের। অপর দিকে একেবারেই নিরব অবস্থায় কৃষি দপ্তর।এতে করে প্রান্তিক চাষিদের মাঝে বিরাজ করছে চরম ক্ষোভ ও অসন্তোষ। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, তানোর উপজেলার কামারগাঁ ইউপির বা উপজেলার শেষ প্রান্ত চৌবাড়িয়া বাজারে প্রবেশে মুল রাস্তার পশ্চিমে জয়নব ট্রেডার্স নামের বালাইনাশকের দোকান রয়েছে। গত বৃহস্পতিবার তার দোকানের সামনে ছিল পটাশ সার। যে সার বিসিআইসির ডিলারদের কাছেও নেই। কিন্তু জয়নবের বালাইনাশকের দোকান ভর্তি ছিল পটাশ সার। তিনি প্রকাশ্যে এক হাজার টাকা বস্তা বিক্রি করছেন। আবার যারা এক শো দেড় শো বস্তা নিচ্ছে তাদের কাছে নয় শো আশি থেকে নব্বই টাকা করে বিক্রি করছেন। কিন্তু কোনভাবেই মেমো দিচ্ছেনা। এছাড়াও ওই বাজারের বিসিআইসির সার ডিলার আশা ট্রেডার্সসহ প্রতিটি ক্ষুদ্র দোকানে বাড়তি দাম নেওয়া হচ্ছে। সব কিছু জেনে নির্বিকার কৃষি দপ্তর।কোন ধরনের নেই মনিটরিং। যার কারনে এই অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে বলে কৃষকদের অভিযোগ। তবে জয়নব জানান, বাড়তি দামে সার কিনে লোকসানে বিক্রি করব নাকি।কোথাও এরকম আছে।তাহলে মেমে দিচ্ছেনা কেন জানতে চাইলে জানান মেমো ছাড়াই বেশি দামে বিক্রি করব বলে দম্ভোক্তি প্রকাশ করেন। উপজেলা কৃষি অফিসারের কাছে এবিষয়ে জানতে ০১৭২০৪৩৭৮২৮ নম্বরে একাধিকবার ফোন দেওয়া হলে শুধু বিজি আর বিজি পাওয়া।