বগুড়ায় কৃষক হত্যার দায়ে ৬জনের যাবজ্জীবন

স্টাফ রিপোর্টার:বগুড়ায় কোকিল চন্দ্র নামে এক কৃষককে হত্যার দায়ে ৬জনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ডে দন্ডিত করেছেন আদালত। সোমবার সকালে বগুড়ার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক হাবিবা মন্ডল এ রায় দেন। দন্ড প্রাপ্তরা হলেন- বগুড়ার গাবতলী উপজেলার কৃষ্ণচন্দ্রপুর মাঝিপাড়া গ্রামের মৃত করুণাকান্তের ৩ ছেলে নবদ্বীপ (৫০), নিত্যানন্দ (৫৭) ও গৌরাঙ্গ (৫৫), গোকুল কান্তের ছেলে লক্ষ্মী চরণ (৩০), নিত্যানন্দের ছেলে রাতেন (৩২) ও শক্তি রামের ছেলে রমনি কান্ত (৬৫)। রায়ে বিচারক প্রত্যেক আসামীর ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ৬ মাসের কারাভোগের নির্দেশ দিয়েছেন। রায় ঘোষণার পর দন্ডিতদের কারাগারে পাঠানো হয়। জানা গেছে, প্রায় ১২ বছর আগে ২০১০ সালের ২৫ মার্চ বিকালে পানি সেচের পাম্পে বিদ্যুৎ সংযোগ নিয়ে বিরোধের জেরে দন্ডিতরা কৃষক কোকিল চন্দ্রকে লাঠি ও রড দিয়ে পিটিয়ে হত্যা করে। ওই ঘটনায় নিহত কোকিল চন্দ্রের কাকা শ্যামল চন্দ্র মন্ডল বাদী হয়ে গাবতলী থানায় মামলা দায়ের করেন। প্রায় ৮ মাস তদন্ত শেষে গাবতলী থানার সাব ইন্সপেক্টর হাফিজার রহমান আদালতে চার্জশীট দাখিল করেন। পরে সোমবার সেই মামলায় আসামিদের যাবজ্জীবন কারাদন্ডের সাজা দেন বিচারক হাবিবা মন্ডল। একই সঙ্গে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেন তিনি। অনাদায়ে তাদের অতিরিক্ত ছয় মাসের কারাদন্ডের রায় ঘোষণা করেন বিচারক।বগুড়ার অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডাভোকেট বিনয় কুমার ঘোষ রজত জানান, কৃষক কোকিল হত্যাকান্ডে জড়িত ছয়জনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দিয়েছেন আদালত। রায় ঘোষণার পর তাদের কারাগারে পাঠানো হয়েছে।