বগুড়ায় ব্যাংকার অতুল সাহার পরলোকগোমন:-বিভিন্ন মহলের শোক

ব্রাক ব্যাংকের বিজনেস্ ডেভেলপমেন্ট ম্যানেজার ও বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ বগুড়া পৌর কমিটির সহ-সভাপতি অতুল কুমার সাহা শুক্রবার সকাল ১০টা ১০ মিনিটে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে শহরের টিএমএসএস মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেছেন (দিব্যাণ লোকান্ স্বঃ গচ্ছতু)। এর আগে তিনি বৃহস্পতিবার রাত থেকে হঠাৎ বুকে ব্যাথা অনুভব করেন এবং সকালে টিএমএসএস হাসপাতালের কার্ডিওলজি বিভাগে চিকিৎসা নিতে যান কিন্তু শেষ মূহুর্তে তাকে আর বাঁচানো যায়নি।
মৃত্যুকালে তিনি একমাত্র পুত্র সন্তানসহ অসংখ্য আত্মীয় স্বজন ও শুভাকাঙ্খী রেখে গেছেন। এর আগে গত ৩১শে ডিসেম্বর অতুল সাহার সহধর্মিণী বিশিষ্ট ব্যবসায়ী বাবলু সাহার কণ্যা জবা সাহা মৃত্যুবরণ করেন। এদিকে মা এবং বাবাকে হারিয়ে শোকে পাথর হয়ে গেছে অতুল সাহার একমাত্র পুত্র সন্তান অপূর্ব সাহা যে কি না এখনো স্কুল পড়ুয়া ছাত্র। শহরের দত্তবাড়ি ও কাটনারপাড়া এলাকায় সর্বস্তরের মানুষের শেষ বিদায়ী ভালবাসায় সিক্ত হয়ে অতুল সাহার মরদেহ তার গ্রামের বাড়ি সিরাজগঞ্জ সদরের খোকশাবাড়ি নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে স্থানীয় শ্মশানে বিকেলে তার শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হয়। এদিকে ব্যাংকার অতুল সাহার অকাল প্রয়ানে তার আত্মার শান্তি কামনা এবং তার শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়ে শোক প্রকাশ করেছেন বগুড়ার বিভিন্ন মহলের মানুষ। শোক বিবৃতিদাতারা হলেন, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ বগুড়া জেলা শাখার সভাপতি সাগর কুমার রায় ও সাধারণ সম্পাদক নির্মল রায়, সংগঠনের সাবেক সভাপতি ও বর্তমান কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য দিলীপ কুমার দেব, দৈনিক চাঁদনী বাজারের সম্পাদক ও প্রকাশক সুমনা রায়, বগুড়া পৌরসভার প্যানেল মেয়র-১ পরিমল চন্দ্র দাস, ৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর তরুণ কুমার চক্রবর্ত্তী, সুকুমার সাহা, এ্যাড. বিজন সাহা, জাতীয় ক্রীড়াবিদ গোপাল তেওয়ারী, ব্যবসায়ী প্রদীপ প্রসাদ, পৌর পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি পরিমল প্রসাদ রাজ, সহ-সভাপতি যথাক্রমে গোপাল চন্দ্র পালিত শংকর, সুজিত জয়সোয়াল, সঞ্জীব প্রসাদ জয়সোয়াল, সাধারণ সম্পাদক সুজিত তালুকদার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক সঞ্জু রায় ও মিথন রায়, সাংগঠনিক সম্পাদক শেখর রায়, দপ্তর সম্পাদক অরুপ রতন শীল, প্রচার সম্পাদক নীতি রঞ্জন সরকার, সুরঞ্জিত সরকার, বগুড়া ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের সহ-সভাপতি সাবু ইসলাম, সাংবাদিক সাখাওয়াত হোসেন জনি প্রমুখ। খবর বিজ্ঞপ্তির