মাদক ও সন্ত্রাস প্রতিরোধে যুব সমাজকে ক্রীড়াঙ্গন মুখী করতে হবে-রনি

সঞ্জু রায়, বগুড়া: বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক এবং জেলা ফুটবল এসোসিয়েশন এর সভাপতি সুলতান মাহমুদ খান রনি বলেছেন, যুব সমাজ ও আমাদের তরুণ প্রজন্মকে মাদক ও সন্ত্রাস থেকে দূরে রাখতে তাদের ক্রীড়াঙ্গন মুখী করতে হবে। যারা খেলাধুলার সাথে জড়িত থাকে তারা কখনো মাদকের সাথে যুক্ত থাকতে পারেনা। তিনি বলেন, বর্তমান সরকার তৃণমূল পর্যায় থেকে শুরু করে দেশের প্রতিটি স্থানে ক্রীড়াঙ্গণের বিকাশে নানামুখী ইতিবাচক উন্নয়ন সাধন করেছে এবং এখনো করে যাচ্ছে। আজকের সময়ে বগুড়ায় জেলা ক্রীড়া সংস্থার উদ্যোগে সরকারি-বেসরকারি নানা পৃষ্ঠপোষকতায় প্রতিটি মাঠে কমবেশি খেলাধুলা চলমান রয়েছে যা ইতিবাচক পরিবর্তনের একটি উদাহরণ।
ধাওয়াপাড়া যুব সমাজের আয়োজনে শুক্রবার রাতে শহরের আকাশতারা বগুড়া কলেজ মাঠে অনুষ্ঠিত প্রীতি ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি প্রধান অতিথির বক্তব্যে কথাগুলো বলেন। বগুড়া পৌরসভার ২০ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রোস্তম আলীর সভাপতিত্বে টুর্ণামেন্টের উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বগুড়া ইয়ূথ ফোরামের উপদেষ্টা ব্যবসায়ী নেতা পরিমল প্রসাদ রাজ। শিক্ষক গোলাম মোস্তফার সঞ্চালনায় এবং ইয়ূথ লিডার মেহরাব হোসেন তানভীর এবং রিমন প্রাং এর সার্বিক ব্যবস্থাপনায় টুর্ণামেন্টে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ১৯,২০ ও ২১ নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর মঞ্জুয়ারা খাতুন মুন্নি, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী সমর চন্দ্র পালিত, বগুড়া ইয়ূথ ফোরামের সভাপতি এবং দৈনিক চাঁদনী বাজারের স্টাফ রিপোর্টার সঞ্জু রায়, ২০নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা আতিক হাসান মানিক এবং ২০নং ওয়ার্ড যুবলীগের সহ-সভাপতি আব্দুল্লাহ আল বাছির বাপ্পি। এছাড়াও অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন সাবেক ছাত্রনেতা আপেল, জেলা ছাত্রলীগ নেতা জেমি পোদ্দার, আবুল কালাম আজাদ প্রমুখ। টুর্ণামেন্টে আকাশতারা যুব সংঘ ৪-১ গোলের ব্যবধানে ধাওয়াপাড়া যুব সংঘকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয়। পরিশেষে বিজয়ী ও পরাজিত দল এবং টুর্নামেন্টে ম্যান অফ দ্য ম্যাচ খেলোয়াড়ের হাতে পুরস্কার তুলে দেন প্রধান অতিথি সুলতান মাহমুদ খান রনি।