বন্ধুদের সাথে গোসলে নেমে বগুড়ায় নদীতে ডুবে শিক্ষার্থীর মৃত্যু

সঞ্জু রায়, বগুড়া: বগুড়ায় করতোয়া নদীতে বন্ধুদের সঙ্গে গোসল করতে গিয়ে পানিতে ডুবে সৈকত (১১) নামে এক স্কুল শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে।
শুক্রবার বিকেল পৌনে পাঁচটার দিকে নদী থেকে তার লাশ উদ্ধার করেন স্থানীয়রা। এর আগে, এদিন দুপুর আড়াইটার দিকে করতোয়া নদীর ভাটকান্দি ব্রিজ এলাকায় গোসল করতে নেমে নিখোঁজ হয় সৈকত। পরে একই স্থানে তার লাশ ভেসে উঠে।
মৃত সৈকত বগুড়া সদরের মালতিনগর শান্তিবাগ এলাকার খোকনের ছেলে। সে বগুড়ার ওয়াইএমসি স্কুলের চতুর্থ শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিল।
বগুড়া সদরের বনানী পুলিশ ফাঁড়ির এসআই সাজ্জাদ হোসেন জানান, শুক্রবার দুপুরে সমবয়সী তিন-চারজন বন্ধুর সঙ্গে করতোয়া নদীর ভাটকান্দি ব্রিজের নিচে গোসল করতে নামে সৈকত। ওই সময় তারা ভেলাতে করে নদীতে ঘুরছিল।  এরই এক পর্যায়ে ভেলা থেকে পড়ে যায় সৈকত। এরপরই সে নদীতে তলিয়ে যায়। স্থানীয়রা অনেক খুঁজেও তার সন্ধান পাননি। পরবর্তীতে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স কর্মীদের খবর দেওয়া হয়। তবে স্থানীয়রা নদী থেকে সৈকতের দেহ উদ্ধার করেন।
তিনি আরও জানান, নদীতে তল্লাসীর এক পর্যায়ে ভাটকান্দি ব্রিজ এলাকায় সৈকতের অচেতন দেহ ভেসে উঠে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে বগুড়া সরকারি মোহাম্মদ আলী হাসপাতালে নেন। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।